সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২:২৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
যশোর বোর্ডের এসএসসি বাংলা ২য় পত্রের এমসিকিউ পরীক্ষা স্থগিত জুমা’র দিনে গোসল ও সুগন্ধির ব্যবহার সম্পর্কে যা বলেছেন বিশ্বনবি ইলিশ মাছের গড় আয়ু কত? নবজাতক শিশুর যত্নে, জন্মের পর করনীয় চুল এবং ত্বকের যত্নে থাকুক টক দই লন্ডনে পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী বাবার লাশ উঠানে, রুমাল হাতে ছেলে পরীক্ষা কেন্দ্রে ঘুমধুম সীমান্তে আবারও গোলাগুলির শব্দ পা দিয়ে লিখে এসএসসি পরীক্ষা দিলেন মানিক সাবেক উপ প্রধানমন্ত্রী প্রয়াত মোয়াজ্জেম হোসেনকে গার্ড অব অনার প্রদান গুয়েতেমালায় কনসার্টে পদদলিত হয়ে নিহত ৯, আহত ২০ কারাগারে বসে এসএসসি পরীক্ষা দিলেন ৩ আসামি পরীক্ষাকেন্দ্রে দায়িত্বে অবহেলার অভিযোগে ৫ শিক্ষককে অব্যাহতি করোনায় আক্রান্ত সিইসি হাবিবুল আউয়াল বেনাপোল সীমান্তে মাদকসহ আটক ১ সরকার সব দলের অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনে বিশ্বাসী : সেতুমন্ত্রী রাঙ্গাকে অব্যাহতির কারণ জানালেন জাপা মহাসচিব নড়াইলে বাংলা প্রথম পত্র পরীক্ষায় দেয়া হলো দ্বিতীয় পত্রের প্রশ্ন! সারাদেশে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু রানির শেষকৃত্যে অংশ নিতে লন্ডনের পথে প্রধানমন্ত্রী

অর্জুন গাছের যতগুন

লাইফষ্টাইল ডেস্ক।
  • আপডেট সময় : শনিবার, ৬ আগস্ট, ২০২২
  • ১০৩ দেখা হয়েছে

 

প্রকাশ : ০৬ আগষ্ট ২০২২(শনিবার)০১:২৫এএম

হাজার হাজার বছর আগে থেকেই চিকিৎসাশাস্ত্রে ভেষজ উপাদানের ব্যবহার হয়ে আসছে। প্রাচীনকালে এখনকার মতো ওষুধ ছিল না। তখন মানুষ বিভিন্ন সমস্যার সমাধানে ভরসা রাখত এসব ভেষজ উপাদানের উপর। ভেষজ উপাদানের মধ্যে অর্জুনের নাম রয়েছে সবার প্রথমে। এই গাছের অনেক গুণ রয়েছে।খবর ক্রাইম রিপোর্টার২৪.কমের।

বৃহদাকৃতির বহুবর্ষজীবী এই উদ্ভিদটি প্রায় ১৮-২৫ মিটার উচ্চতা বিশিষ্ট হয়ে থাকে। ছাল খুব মোটা এবং ধূসর বর্ণের। গাছ থেকে সহজেই ছাল উঠানো যায়। শীতের শেষেই সাধারণত গাছ নিষ্পত্র হয়ে যায় এবং বসন্তে নতুন পাতায় গাছ ভরে যায়। হার্টের সমস্যা দূর করার পাশাপাশি বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধ করতেও সহায়তা করে এটি। এছাড়াও বিভিন্ন রোগের দাওয়াই এই ছোট্ট ফলটি। শুধু ফলই নয়, এই গাছের পাতা, ছালও সমান উপকারী।

চলুন পাঠক জেনে নেয়া যাক অর্জুন গাছের কিছু উপকারিতা সম্পর্কে –

১।হৃদরোগ উপশমে অর্জুন ছাল ব্যবহৃত হয়। আবার শুকনো ফল গুঁড়া করে পানির সঙ্গে মিশিয়ে খেলেও উপকার পাবেন। রক্তে নিম্ন চাপ থাকলে অর্জুনের ছালের রস সেবনে উপকার হয়। রক্তক্ষরণে ৫-৬ গ্রাম ছাল রাতে পানিতে ভিজিয়ে রেখে সকালে ছেকে পানি খেলে আরোগ্য হয়।

২।শ্বেত বা রক্ত প্রদরে ছাল ভিজানো পানি আধ চামট কাঁচা হলুদের রস মিশিয়ে খেলে রোগের উপশম হয়।

৩।অ্যাজমার ক্ষেত্রে কিন্তু অর্জুন গাছের ছাল অসাধারণ উপকারী। আপনি যদি অর্জুন গাছের ছাল গুঁড়া করে দুধে মিশিয়ে খেতে পারেন নিয়মিত তাহলে এই অ্যাজমার সমস্যা অনেক কমে যাবে।

৪।এই গাছের ছাল মুখ, জিহ্বা ও মাড়ির প্রদাহের চিকিৎসায় ব্যবহৃত হয়, এটি মাড়ির রক্তপাত বন্ধ করে।

৫।এটি সংকোচন ও জ্বর রোধক হিসেবেও কাজ করে।

৬।এছাড়া চর্ম ও যৌন রোগে অর্জুন ব্যবহুত হয়। অর্জুন খাদ্য হজম ক্ষমতা বাড়ায়। খাদ্যতন্ত্রের ক্রিয়া স্বাভাবিক রাখতে সাহায্য করে।

৭।ত্বকের জন্যও অর্জুন গাছের ছাল খুবই উপকারী। এটি ভেতর থেকে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায়, ত্বকের কোষ মজবুত করে। অর্জুন গাছের ছাল মধুর সঙ্গে মিশিয়ে ব্রণের উপর লাগালে তা কমে যায়। আবার এই ছালের সঙ্গে মধু মিশিয়ে ব্যবহার করলে মেছতার দাগও কমে যায়। অর্জুন গাছের ছাল ফেস প্যাক হিসেবে অনেকেই নিয়মিত ব্যবহার করে থাকেন।খবর ক্রাইম রিপোর্টার২৪.কমের।

শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরির আরো খবর

সম্পাদক ও প্রকাশক

মুহম্মদ মিজানুর রহমান চৌধুরী

© All rights reserved by Crimereporter24.com
রি-ডিজাইনঃ Cumilla IT Institute
themesba-lates1749691102