শনিবার, ১৩ অগাস্ট ২০২২, ১২:২৬ অপরাহ্ন
শিরোনাম
জাতীয় পার্টিতে সাক্কুর যোগ দেয়া নিয়ে জোর গুঞ্জন! ফেনীতে বিএনপির সঙ্গে ছাত্রলীগ-যুবলীগের সংঘর্ষে হতাহত ১০    স্ত্রী হত্যার অভিযোগে স্বামী আটক করোনায় আক্রান্ত রাশেদ খান মেনন কুষ্টিয়ায় ফিলিং স্টেশনে আগুন, নিহত ২ আহত ১ দিনমজুরের দুই হাতের কব্জি বিচ্ছিন্ন, স্ত্রী আটক কুমিল্লার সদর দক্ষিণে ৮৮ বোতল ফেন্সিডিলসহ যুবক আটক কুমিল্লার দেবিদ্বারে ইয়াবা, গাঁজা, ফেনসিডিল সহ দুই মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার কুমিল্লায় ডাকাতির ঘটনায় ৩ডাকাত সদস্য গ্রেফতার; নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার ও উদ্ধার রেলওয়ের টিকিটে অতিরিক্ত ২০ রুপি কেটে নেওয়ায় ফেরত পেতে ২২ বছরের আইনি লড়াই আগস্টের ১০ দিনে ৮১ কোটি ১৩ লাখ মার্কিন ডলার রেমিট্যান্স এসেছে দেশে কুমিল্লার বরুড়ায় একমাত্র ছেলের ছুরিকাঘাতে বাবার মৃত্যু বিশ্ব হাতি দিবস আজ সমুদবন্দরে ৩ নম্বর সতর্কসংকেত,সারা দেশে বৃষ্টির পূর্বাভাস বর্নাঢ্য জন্মদিন পালনের প্রলোভন দেখিয়ে নারী চিকিৎসকে হোটেলে আনে হত্যাকারী রাজধানীতে ট্রেনে কাটা পড়ে পুলিশ কনস্টেবলের মৃত্যু কুমিল্লা দাউদকান্দিতে সাউন্ড বক্সের ভিতরে মিললো ২২ কেজি গাঁজা ; আটক পিকআপ চালক পটুয়াখালীতে ফেনসিডিল পাচারের সময় আটক ১ কুমিল্লার দাউদকান্দিতে সাউন্ড বক্সের ভিতরে মিললো ২২ কেজি গাঁজা : আটক পিকআপ চালক

কুমিল্লা নয়, ‘মেঘনা’ নামেই বিভাগ হচ্ছে কুমিল্লায়! আগামীকাল আসছে ঘোষণা

শিশির সমরাট।
  • আপডেট সময় : বুধবার, ১ জুন, ২০২২
  • ২৫৮ দেখা হয়েছে

প্রকাশ : ০১ জুন২০২২(বুধবার)০৫:৩২

‘কুমিল্লা নামেই বিভাগ চাই’এর আন্দোলন তীব্র থাকার পরও চট্টগ্রাম বিভাগ ভেঙে বৃহত্তর কুমিল্লা ও বৃহত্তর নোয়াখালীর ছয় জেলা নিয়ে মেঘনা নদীর নামানুসারে ‘মেঘনা’ নামেই একটি নতুন বিভাগ করা হচ্ছে। মেঘনা বিভাগের সদর দফতর হবে কুমিল্লায়! আগামীকাল বৃহস্পতিবার আসছে এর ঘোষণা।খবর ক্রাইম রিপোর্টার২৪.কমের।

এছাড়া ঢাকা বিভাগ ভেঙে বৃহত্তর ফরিদপুরের পাঁচ জেলা নিয়ে পদ্মা নদীর নামানুসারে ‘পদ্মা’ নামে নতুন বিভাগ হচ্ছে। একইভাবে এই প্রথম দেশের প্রধান দুটি নদী পদ্মা-মেঘনার নামে নতুন দুটি বিভাগ হতে যাচ্ছে। প্রস্তাবিত পদ্মা বিভাগের সদর দফতর হবে ফরিদপুরে।

আগামীকাল বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে তাঁর কার্যালয়ে প্রশাসনিক পুনর্বিন্যাস সংক্রান্ত জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটি (নিকার) বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে। সেখানে এ বিভাগ দুটি অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করার কথা। এ ছাড়া ওই বৈঠকে একটি নতুন পৌরসভা ও আরেকটি পৌরসভার সীমানা নির্ধারণসহ মোট ছয়টি এজেন্ডা উপস্থাপন করা হতে পারে।

বৃহত্তর কুমিল্লার তিন জেলা কুমিল্লা, ব্রাহ্মণবাড়িয়া ও চাঁদপুর এবং বৃহত্তর নোয়াখালীর তিন জেলা নোয়াখালী, ফেনী ও লক্ষ্মীপুরসহ মোট ছয় জেলা নিয়ে মেঘনা নদীর নামে ‘মেঘনা’ বিভাগ করার প্রস্তাব করা হয়েছে। এর সদর দফতর হবে কুমিল্লায়। তবে বিভাগ সংক্রান্ত গণশুনানিতে নোয়াখালীর নেতারা প্রস্তাবিত মেঘনা বিভাগে থাকার ব্যাপারে আপত্তি জানিয়েছেন। অন্যদিকে কুমিল্লার সর্বস্তরের জনগণ তাদের বিভাগের নাম কুমিল্লা নামেই করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে একাধিকবার অনুরোধ করেছেন। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ বিষয়ে সম্মতি দেননি। সর্বশেষ গত বছরের ডিসেম্বরে অনুষ্ঠিত জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি-একনেক সভায় কোনো জেলার নামে নয়, নতুন দুটি বিভাগ পদ্মা ও মেঘনা নদীর নামেই হবে বলে জানিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। একনেকের বৈঠক শেষে এসব তথ্য জানিয়েছিলেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান।

জানা গেছে, বর্তমানে বৃহত্তর কুমিল্লা ও বৃহত্তর নোয়াখালীর ছয়টি জেলায় প্রায় ২ কোটি জনসংখ্যা রয়েছে। ওই ছয় জেলার আয়তন প্রায় ১৩ হাজার বর্গকিলোমিটার, যা ইতিমধ্যে প্রতিষ্ঠিত সিলেট, বরিশাল ও রংপুর বিভাগের চেয়ে জনসংখ্যা ও আয়তনের প্রায় দ্বিগুণ। কুমিল্লায় সরকারের প্রায় সব ধরনের প্রতিষ্ঠানই রয়েছে। প্রশাসন বিকেন্দ্রীকরণের লক্ষ্যে কুমিল্লায় বিভাগ হলে ঢাকা ও চট্টগ্রামের ওপর জনগণের চাপ কমবে। ঢাকা শহরে বাড়তি লোকের চাপ হবে না। সেখানে যানজটও কমে আসবে। ঢাকা ও চট্টগ্রামের মধ্যবর্তী স্থানে কুমিল্লার অবস্থান। একটি পরিপূর্ণ আবাসিক জেলা হিসেবে কুমিল্লার সুনাম রয়েছে। রাজধানী ও বন্দরনগরীর ওপর চাপ কমাতে এ শহর বেশ ভূমিকা রাখবে। বৃহত্তর কুমিল্লা ও নোয়াখালীর ছয় জেলার মধ্যবর্তী স্থানেও কুমিল্লার অবস্থান। ভৌগোলিক ও উন্নত যোগাযোগব্যবস্থার কারণে কুমিল্লা খুবই সমৃদ্ধ জনপদ। এ ছয় জেলার মানুষের সঙ্গে সড়ক, রেল ও নদীপথে যোগাযোগ অত্যন্ত মসৃণ। দাফতরিক বেশির ভাগ কাজেই ছয় জেলার মানুষ কুমিল্লায় জড়ো হন। এখানে দিনে এসে দিনে কাজ করে বাড়ি ফিরে যাওয়া সম্ভব। ছয় জেলার মানুষের আঞ্চলিক ভাষাও কাছাকাছি।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ঢাকা বিভাগ ভেঙে প্রস্তাবিত বৃহত্তর ফরিদপুরের পাঁচ জেলা ফরিদপুর, শরীয়তপুর, রাজবাড়ী, গোপালগঞ্জ ও মাদারীপুর নিয়ে পদ্মা নদীর নামানুসারে এ বিভাগ করার প্রস্তাব করা হয়েছে। আর এর সদর দফতর হবে ফরিদপুরে। ফরিদপুর জেলার আয়তন ২ হাজার ৭৩ বর্গকিলোমিটার। জনসংখ্যা ১৯ লাখ ৮৮ হাজার ৬৯৭। গোপালগঞ্জ জেলার আয়তন ১ হাজার ৪৬৮ দশমিক ৭৪ বর্গকিলোমিটার। জনসংখ্যা ১১ লাখ ৭২ হাজার ৪১৫। রাজবাড়ীর আয়তন ১ হাজার ১১৮ দশমিক ৮০ বর্গকিলোমিটার। জনসংখ্যা ১০ লাখ ১৫ হাজার ৫১৯। শরীয়তপুরের আয়তন ১ হাজার ৩৬৩ দশমিক ৭৬ বর্গকিলোমিটার। জনসংখ্যা ১১ লাখ ৫৫ হাজার ৮২৪। মাদারীপুরের আয়তন ১ হাজার ১২৫ দশমিক ৬৯ বর্গকিলোমিটার। জনসংখ্যা ১২ লাখ ১২ হাজার ১৯৮। ফলে পদ্মা বিভাগের মোট আয়তন হবে ৭ হাজার ১৪৯ দশমিক ৯৯ বর্গকিলোমিটার। মোট জনসংখ্যা ৬৫ লাখ ৪৪ হাজার ৬৫৩। সাক্ষরতার হার ৪৮ দশমিক ৯ ভাগ।খবর ক্রাইম রিপোর্টার২৪.কমের।

শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরির আরো খবর

সম্পাদক ও প্রকাশক

মুহম্মদ মিজানুর রহমান চৌধুরী

© All rights reserved by Crimereporter24.com
রি-ডিজাইনঃ Cumilla IT Institute
themesba-lates1749691102