1_87251

টানা বর্ষণ আর উজানের পাহাড়ী ঢলে তিস্তা নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। রবিবার সকাল থেকে নদীর পানি তিস্তা ব্যারাজের নীলফামারীর ডালিয়া পয়েন্টে বিপদ সীমার ২০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

নীলফামারী পানি উনয়ন বোর্ড ডালিয়া ডিভিশনের বন্যা পূবাভাস ও সর্তকীকরণ কেন্দ্রের বরাত দিয়ে ডালিয়া ডিভিশনের নির্বাহী প্রকৌশলী মোস্তাফিজুর রহমান জানান, টানা বৃষ্টিপাত আর উজানের পাহাড়ী ঢলের কারণে কয়েক দিন থেকে তিস্তা নদীর পানি বাড়তে থাকে। যা আজ রবিবার সকাল থেকে তিস্তা ব্যারাজের বিপদ সীমার ২০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

পানি নিয়ন্ত্রণে রাখতে ব্যারাজের সব ক’টি জলকপাট খুলে রাখা হয়েছে এবং সাবির্ক খোঁজ খবর নেওয়া হচ্ছে নদী সংলগ্ন এলাকাগুলোর।

এদিকে তিস্তা নদীর পানি বিপদ সীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হওয়ায় নদীর র্তীরবর্তী নীলফামারী ডিমলা উপজেলার চরগ্রাম বাইশপুকুর, কিসামত ছাতনাই, পূর্বছাতনাই ঝাড়শিঙ্গেরশ্বর, বাঘেরচর, টাবুর চর, ভেন্ডাবাড়ী, ছাতুনামা, হলদিবাড়ী, একতারচর, ভাষানীর চর, কিসামতের চর, ছাতুনামা এবং জলঢাকা উপজেলার গোলমুন্ডা, ডাউয়াবাড়ি, শৌলমারী ও চরগ্রাম প্লাবিত হয়েছে।

বাহাদুর বেপারীঅন্যান্য
টানা বর্ষণ আর উজানের পাহাড়ী ঢলে তিস্তা নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। রবিবার সকাল থেকে নদীর পানি তিস্তা ব্যারাজের নীলফামারীর ডালিয়া পয়েন্টে বিপদ সীমার ২০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। নীলফামারী পানি উনয়ন বোর্ড ডালিয়া ডিভিশনের বন্যা পূবাভাস ও সর্তকীকরণ কেন্দ্রের বরাত দিয়ে ডালিয়া ডিভিশনের নির্বাহী...