46462acebbf41937f3445aebcf172f12-smartphonettt
মোবাইল ফোন এখন নানা কাজে ব্যবহৃত হচ্ছে। শিগগিরই হয়তো মোবাইল ফোন ব্যবহার করে গর্ভধারণ পরীক্ষা (প্রেগন্যান্সি টেস্ট) করা যাবে। জার্মানির বিজ্ঞানীদের উদ্ভাবিত নতুন একটি সেন্সর এ সম্ভাবনার কথা বলছে। শুক্রবার যুক্তরাজ্যের মিরর অনলাইনের এক খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।
সম্প্রতি জার্মানির হ্যানোভার ইউনিভার্সিটির হ্যানোভার সেন্টার ফর অপটিক্যাল টেকনোলজিসের গবেষকেরা স্মার্টফোনে ব্যবহার উপযোগী একটি ফাইবার অপটিক সেন্সর উদ্ভাবন করেছেন, যার নাম সারফেস প্লাজমন রিজোনেন্স বা এসপিআর। গবেষকদের দাবি, এই স্বয়ংসম্পূর্ণ সেন্সরটি ডায়াবেটিস বা গর্ভধারণ পরীক্ষার মতো বিভিন্ন কাজে লাগানো যাবে।
এই সেন্সরটি যে তথ্য সংগ্রহ করতে পারে, তা স্মার্টফোনের একটি অ্যাপ্লিকেশনে ব্যবহার করা যেতে পারে। এর মাধ্যমে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করে সঙ্গে সঙ্গে কাঙ্ক্ষিত ফল পাওয়া যেতে পারে।
এই সেন্সরটি ঠিকমতো স্মার্টফোনের উপযোগী করা গেলে ব্যবহারকারীরা রক্ত, মূত্র, থুতু, ঘাম বা শ্বাস-প্রশ্বাস পরীক্ষা করতে পারবেন। চিকিৎসা সংক্রান্ত কাজে এই সেন্সরে ধারণ করা তথ্য জিপিএস সংকেত ব্যবহার করে চিকিৎসকের কাছে পাঠাতে পারবেন ব্যবহারকারী।

গবেষকেরা স্মার্টফোনের জন্য ছোট আকারের কার্যকরী একটি চিপ তৈরির সম্ভাবনা দেখছেন। গবেষক কোর্ট ব্রেমার দাবি করেছেন, স্মার্টফোনের চিপ হিসেবে এই দরকারি সেন্সরটি তৈরি করা গেলে তা মানুষের জন্য সহজলভ্য হবে।

তুনতুন হাসানবিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
মোবাইল ফোন এখন নানা কাজে ব্যবহৃত হচ্ছে। শিগগিরই হয়তো মোবাইল ফোন ব্যবহার করে গর্ভধারণ পরীক্ষা (প্রেগন্যান্সি টেস্ট) করা যাবে। জার্মানির বিজ্ঞানীদের উদ্ভাবিত নতুন একটি সেন্সর এ সম্ভাবনার কথা বলছে। শুক্রবার যুক্তরাজ্যের মিরর অনলাইনের এক খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে। সম্প্রতি জার্মানির হ্যানোভার ইউনিভার্সিটির হ্যানোভার সেন্টার ফর অপটিক্যাল টেকনোলজিসের গবেষকেরা স্মার্টফোনে...