87270_er
যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের হিউস্টন শহরে ঘটে গেলো নৃশংস এক হত্যাকা-ের ঘটনা। একই পরিবারের ৮ জনকে হত্যা করলো ঘাতক। তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং আদালতে শুনানি শুরু হয়েছে। ৬ শিশু ও তাদের পিতামাতাসহ ৮ জনকে মাথায় গুলি করে হত্যা করা হয়। হত্যাকা-ের কারণ অনুসন্ধানে বেরিয়ে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য। ৬ সন্তানের মায়ের সঙ্গে সাবেক প্রেমিকের বিতর্কের জের ধরে নির্মম এ হত্যাকা- চালিয়েছে ৪৮ বছর বয়সী ডেভিড কনলি নামের ওই ব্যক্তিকে। এর আগেও ওই ব্যক্তি সহিংস অপরাধ কর্মকা- ঘটিয়েছে। এ খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা এপি। কনলির বিরুদ্ধে হত্যাযজ্ঞের ঘটনায় গুরুতর অভিযোগ আনা হয়েছে। নিহত অধিকাংশের হাতে হ্যান্ডকাফ বা হাতকড়া পরানো ছিল। হ্যারিস কাউন্টি শেরিফের কার্যালয়ের প্রধান তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ সার্জেন্ট ক্রেইগ ক্লপটন জানান, এর মধ্যে কয়েকজনকে বেশ কয়েকবার গুলি করা হয়েছে। নিহতরা হলেন, ডেওয়েইন জ্যাকসন (৫০), তার স্ত্রী ভ্যালেরি জ্যাকসন (৪০), এবং তাদের সন্তান ডেওয়েইন (১০), অনেস্টি (১১), ক্যালেব (৯), ট্রিনিটি (৭)। এদিকে ওই নারীর সঙ্গে পূর্বে হত্যাকারীর সম্পর্ক ছিল। ঘাতক কনলি ও ভ্যালেরির সন্তান ১৩ বছরের ন্যাথানিয়েলকেও হত্যা করে কনোলি। হত্যাকারীর উদ্দেশ্য নিয়ে এখনও ধোঁয়াশা রয়েছে পুলিশ। বিশেষ করে এতোগুলো শিশুকে হত্যার কোন কারণ খুঁজে পাচ্ছেন না কর্মকর্তারা। গতকাল আদালতে হত্যা মামলায় প্রথম শুনানিতে উপস্থিত ছিল না হত্যাকারী। গ্রেপ্তারের একটি বিবৃতি আদালতে পড়ে শোনানো হয়। শনিবার কখন এ হত্যাকা-ের ঘটনা ঘটে, তা জানাতে অস্বীকৃতি জানান তদন্ত কর্মকর্তারা। তাদের মধ্যে কেউ বেঁচে আছেন কিনা, তাও নিশ্চিত করেননি। তবে বিভিন্ন সূত্রে বলা হচ্ছে, হামলায় ওই পরিবারের সবাই নিহত হয়েছে। ১৯৮৮ সালেও কনলির বিরুদ্ধে অপরাধের রেকর্ড ছিল। গত মাসে ভ্যালেরিকে আঘাত করার অভিযোগে অভিযুক্ত হয় কনলি। আদালতে পেশ করা নথি অনুযায়ী, যে বাড়িতে এ হত্যাকা- সংঘটিত হয়েছে, সেখানেই তারা ডেটিং করছিলেন। ২০১৩ সালে ছুরি দিয়ে ভ্যালেরিকে ভয় দেখানোর অভিযোগ আনা হয়েছিল ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে। ৯ মাস সে সময় জেলে ছিল সে। ২০০০ সালেও সে সময়কার গার্লফ্রেন্ড, তার শিশু সন্তানকে ছুরিকাঘাতে হত্যার হুমকি দেয়ার অভিযোগে গ্রেপ্তার হয়েছিল কনলি। আত্মহত্যাও করতে চেয়েছিল সে।

তুনতুন হাসানআন্তর্জাতিক
যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের হিউস্টন শহরে ঘটে গেলো নৃশংস এক হত্যাকা-ের ঘটনা। একই পরিবারের ৮ জনকে হত্যা করলো ঘাতক। তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং আদালতে শুনানি শুরু হয়েছে। ৬ শিশু ও তাদের পিতামাতাসহ ৮ জনকে মাথায় গুলি করে হত্যা করা হয়। হত্যাকা-ের কারণ অনুসন্ধানে বেরিয়ে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য। ৬ সন্তানের...