1_103325
সিরাজগঞ্জে পারিবারিক কলহের জের ধরে মা ও দুই মেয়েকে বিষপান করিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ওই পরিবারের অন্য সদস্যদের বিরুদ্ধে। নিহতরা হলেন- সলঙ্গার পাঁচিলিয়ার দক্ষিণপাড়া গ্রামের মৃত রানার স্ত্রী আমেনা বেগম (৩৫), তার মেয়ে ফাতেমা (৬) ও নুপুর(৩)।
এ ঘটনায় ওই পরিবারের চার সদস্যকে আটক করা হয়েছে।

তবে পরিবারের অন্য সদস্যরা বলছেন, পারিবারিক কলহের কারণে দুই শিশু কন্যাকে বিষপান করিয়ে হত্যার পর মা নিজেই বিষপান করে আত্মহত্যা করেছেন। রবিবার সন্ধ্যা সাতটার দিকে সিরাজগঞ্জের সলঙ্গার পাঁচিলিয়ার দক্ষিণপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

সিরাজগঞ্জ সদর থানার উপপরিদর্শক আনিসুল ইসলাম ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, সন্ধ্যায় উপজেলার পাঁচিলিয়ার দক্ষিণপাড়া গ্রামে আমেনা বেগম দুই শিশু কন্যাকে দুধ পান করান। এরপর নিজেও দুধ পান করেন। দুধ খাবার পর তাদের অবস্থা খারাপ হলে সন্ধ্যা সোয়া ৭টার দিকে শিশুদের সিরাজগঞ্জ আভিসিনা হসপিটালে নিয়ে গেলে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন। অপরদিকে, আমেনা খাতুনকে সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে রাত ৮টার দিকে তিনিও মারা যান।

নিহত গৃহবধূ আমেনার পিতার বরাত দিয়ে তিনি আরো জানান, আমেনার স্বামী কিছুদিন আগে মারা গেছেন। তাদের জমিজমা দখল করে নেবার জন্য দেবর-ভাসুররা মিলে দুধে বিষ মিশিয়ে তাদেরকে হত্যা করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

গৃহবধূ আমেনা হাসপাতালে মারা যাবার পর তার দেবর মানিক ও শহিদুল গোপনে লাশ নিয়ে যাবার সময় তাদেরকে আটক করা হয়েছে। পরে নিহত আমেনার ননদ সেলিনা খাতুন ও মানিকের স্ত্রী লিপি খাতুনকে আটক করা হয় বলে উপপরিদর্শক আনিসুল ইসলাম জানান

সুরুজ বাঙালীপ্রথম পাতা
সিরাজগঞ্জে পারিবারিক কলহের জের ধরে মা ও দুই মেয়েকে বিষপান করিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ওই পরিবারের অন্য সদস্যদের বিরুদ্ধে। নিহতরা হলেন- সলঙ্গার পাঁচিলিয়ার দক্ষিণপাড়া গ্রামের মৃত রানার স্ত্রী আমেনা বেগম (৩৫), তার মেয়ে ফাতেমা (৬) ও নুপুর(৩)। এ ঘটনায় ওই পরিবারের চার সদস্যকে আটক করা হয়েছে। তবে পরিবারের অন্য সদস্যরা বলছেন,...