Hazz_-150x83
পবিত্র হজ পালনে ইতোমধ্যে সৌদি আরবের জেদ্দায় অবস্থান করছেন ২৩ হাজার ৩৫৪ জন বাংলাদেশি।

১৬ আগস্ট থেকে ২২ আগস্ট রাত পর্যন্ত সরকারি-বেসরকারি ৬০টি ফ্লাইটের মাধ্যমে সর্বমোট ২৩ হাজার ৩৫৪ জন হজযাত্রী সৌদি আরবের জেদ্দায় গিয়েছেন। এর মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনার ১ হাজার ৯৮১ জন এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনার ১৯ হাজার ৩১২ জন বাংলাদেশি রয়েছেন।

শনিবার (২২ আগস্ট) সন্ধ্যায় বিমানবন্দর এলাকার আশকোনায় অবস্থিত হজ ক্যাম্পের তথ্যকেন্দ্র থেকে এসব তথ্য পাওয়া যায়।

ক্যাম্প তথ্যকেন্দ্রের ইনচার্জ মো. কবির আল মামুন ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, ১৬ থেকে ২২ আগস্ট সন্ধ্যা পর্যন্ত সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় মোট ৬০টি ফ্লাইট বাংলাদেশ থেকে সৌদির জেদ্দায় গিয়েছে। এতে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ৩০টি এবং সৌদি এয়ারলাইন্সের ৩০টি ফ্লাইট পরিচালিত হয়।

তিনি জানান, তবে হজ যাত্রীদের ভিসা সংক্রান্ত জটিলতার অবসানের পর থেকে এখন পর্যন্ত সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনার কোনো ফ্লাইটের সিডিউল পরিবর্তন হয়নি এবং ডিলে (সময় পেছানো) হয়নি।

ঢাকা হজ অফিস থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী এবার ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে ৭৮৩টি হজ এজেন্সি মুসল্লিদের পাঠানোর অনুমোদন পেয়েছে। এদিকে বেসরকারি ব্যবস্থাপনার মোয়াল্লেম ফি জমাদানকারী এজেন্সি রয়েছে ৮৫৪টি। এ বছর সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় সৌদি আরবে হজ পালনে যাবেন ১ লাখ ১ হাজার ৭৫৮ জন।

সৌদি দূতাবাসে সরকারি ব্যবস্থাপনার দুই হাজার ৬৫৫ জন হজযাত্রীদের ভিসার জন্য ডিও ইস্যু করা হয়েছে। সৌদি দূতাবাস থেকে প্রাপ্ত সরকারি ব্যবস্থাপনার হজযাত্রীদের ভিসা সংখ্যা ২৬৩৫ জন। সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রীদের ৬৮ জন গাইডসহ মোট যাত্রী সংখ্যা দুই ৬০৩ জন।

এদিকে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে প্রকাশিত এক বিশেষ হজ বুলেটিনের মাধ্যমে জানা যায়, এ পর্যন্ত সৌদিতে মোট তিনজন বাংলাদেশি হজযাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। যার তিনজনই পুরুষ।

সুরুজ বাঙালীজাতীয়
পবিত্র হজ পালনে ইতোমধ্যে সৌদি আরবের জেদ্দায় অবস্থান করছেন ২৩ হাজার ৩৫৪ জন বাংলাদেশি। ১৬ আগস্ট থেকে ২২ আগস্ট রাত পর্যন্ত সরকারি-বেসরকারি ৬০টি ফ্লাইটের মাধ্যমে সর্বমোট ২৩ হাজার ৩৫৪ জন হজযাত্রী সৌদি আরবের জেদ্দায় গিয়েছেন। এর মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনার ১ হাজার ৯৮১ জন এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনার ১৯ হাজার ৩১২ জন...