ERSHAD
জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত এইচএম এরশাদ বলেছেন, মেডিক্যাল ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা। সরকারের উচিত ছিল নতুন করে পরীক্ষা নেওয়া।
তবে ফলাফল প্রকাশের পর এ নিয়ে আর কোনো সিদ্ধান্ত বদল হতে পারে বলে মনে করেন না তিনি।
মঙ্গলবার দুপুরে ঈদ পালন উপলক্ষে রংপুরে আসেন জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান। এ সময় তার বাসভবন পল্লীনিবাসে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে তিনি এ সব কথা বলেন।
এরশাদ বলেন, বর্তমান সরকার আমলে শিক্ষার ক্ষেত্রে অনেক ভালো কাজ হয়েছে। শিক্ষার অগ্রগতি ছড়িয়ে পড়েছে। কিন্তু এক শ্রেণির মানুষ সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট করছে। কারা এ সব করছে সরকারের সকল সংস্থা সব জানে, কিন্তু সরকার তাদের নিয়ন্ত্রণ করতে পারছে না।
তিনি বলেন, যারা ফাঁস হওয়া প্রশ্নপত্র দিয়ে ডাক্তার হবেন, তারা মানুষের সেবা না করে চিকিৎসা ব্যবসায় জড়িয়ে পড়বেন।
এছাড়া বর্তমান বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকের আন্দোলনসহ স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের আন্দোলনকেও যৌক্তিক বলে মনে করেন সাবেক এই রাষ্ট্রপতি। তিনি বলেন, শিক্ষকদের দাবি সরকারের মেনে নেয়া উচিত।
বিভিন্ন ঘটনায় দায়মুক্তির বিষয়ে এরশাদ বলেন, সরকার এভাবেই দেশ চালাচ্ছে।
এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য মেজর খালেদ এবং জেলা ও মাহানগর নেতৃবৃন্দ।

শুভ সমরাটজাতীয়
জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত এইচএম এরশাদ বলেছেন, মেডিক্যাল ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা। সরকারের উচিত ছিল নতুন করে পরীক্ষা নেওয়া। তবে ফলাফল প্রকাশের পর এ নিয়ে আর কোনো সিদ্ধান্ত বদল হতে পারে বলে মনে করেন না তিনি। মঙ্গলবার দুপুরে ঈদ পালন উপলক্ষে রংপুরে আসেন জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান।...