?

?


মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট আকম মোজাম্মেল হক এমপি বলেছেন, ‘পবিত্র ঈদুল আযহার পর গাজীপুরের শিববাড়ি থেকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর পর্যন্ত ৭টি ফ্লাইওভার, আন্ডারপাসসহ আধুনিক মানের রাস্তা নির্মাণ কাজ শুরু হবে। জাইকার অর্থায়নে এ প্রকল্পে ব্যয় হবে ২ হাজার ৪০ কোটি টাকা। এ সরকারের মেয়াদেই এ নির্মাণ কাজ শেষ হবে। এটি হবে পৃথিবীর উন্নত প্রযুক্তি দিয়ে তৈরি আধুনিক মানের রাস্তা। এতে গাজীপুর ও ঢাকাসহ দেশের সাধারণ মানুষ যানজট মুক্ত চলাচল করতে পারবেন।’

শনিবার দুপুরে গাজীপুরের চান্দনা চৌরাস্তায় হাজী সুনামদ্দিন ওয়াকফ্ এস্টেট সুপার মার্কেটের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

হাজী সুনামদ্দিন ওয়াকফ্ এস্টেট মোতাওয়াল্লী হাজী আব্দুল বারেক সরকারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন, গাজীপুর জেলা প্রশাসক এস এম আলম, গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আজমত উল্যাহ খান, সাধারণ সম্পাদক মো. জাহাঙ্গীর আলম, গাজীপুর সরকারি মহিলা কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর এম এ বারী, এস্টেট কমিটির সদস্য মোজাম্মেল হক সরকার প্রমুখ।

উপস্থিত ছিলেন সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সাত্তার মিয়া, অধ্যাপক আব্দুল বারী, সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, রফিকুল ইসলাম, আব্দুল কাদের মিয়া, হিরা সরকার, কাউন্সিলর খোরশেদ আলম সরকার, মোসলেম উদ্দিন চৌধুরী মূসা প্রমুখ।

ওয়াজ কুরুনীস্বদেশের খবর
মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট আকম মোজাম্মেল হক এমপি বলেছেন, 'পবিত্র ঈদুল আযহার পর গাজীপুরের শিববাড়ি থেকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর পর্যন্ত ৭টি ফ্লাইওভার, আন্ডারপাসসহ আধুনিক মানের রাস্তা নির্মাণ কাজ শুরু হবে। জাইকার অর্থায়নে এ প্রকল্পে ব্যয় হবে ২ হাজার ৪০ কোটি টাকা। এ সরকারের মেয়াদেই এ নির্মাণ কাজ...