1439911199
জেলার বানিয়াচং উপজেলায় জমি বর্গা করা নিয়ে দুদল লোকের সংঘর্ষে অর্ধশতাধিক লোক আহত হয়েছে। এদের মধ্যে আহত ৪৩ জনকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।

মঙ্গলবার বিকেলে প্রায় তিন ঘণ্টা স্থায়ী হয় এ সংঘর্ষ। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানায়, ওই উপজেলার শাহপুর গ্রামের শাহজাহানের কিছু জমি বর্গা নেয় মাওলানা আজিজুল ইসলাম। ওই জমিতে মঙ্গলবার সকালে চাষ দিতে যায় তার ভাই হিফজুর রহমান। এ সময় একই গ্রামের নিয়ামত উল্লাহর ছেলে কাওছার চাষ দিতে বাধা দেয়। তার দাবি ওই জমি তিনি বর্গা নেবে বলে জমির মালিকের সঙ্গে কথা হয়েছে। এ নিয়ে তাদের মধ্যে বাক্বিতণ্ডার এক পর্যায়ে কাওছার লঠিসোঁটা নিয়ে হিফজুরকে মারপিট করে। এ খবর তার স্বজনদের মধ্যে জানাজানি হলে তারা উত্তেজিত হয়ে উঠে। এ বিরোধকে কেন্দ্র করে উভয়পক্ষ সংঘর্ষের প্রস্তুতি নেয়। এক পর্যায়ে বিকেলে দুপক্ষ টেটা, বল্লম, ফিকলসহ দেশীয় অস্ত্র সজ্জিত হয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। মুহূর্তের মধ্যে সংঘর্ষ পুরো গ্রামে ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় গ্রামের অন্যান্য লোকজন দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে সংঘর্ষে যোগ দিলে গ্রামটি রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। সংঘর্ষ চলাকালে বেশ কিছু বাড়িঘরে হামলা, ভাঙচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটে। এতে অর্ধশতাধিক লোক আহত হয়।

জমির মালিক শাহজাহান ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, জমিটি বর্গা দেয়ার জন্য নিয়ামত উল্লাহর সঙ্গে কথা হয়েছিল। কিন্তু দরে বনাবনি না হওয়ায় পরে এটি আজিজুল ইসলামের কাছে বর্গা দেন।

তুনতুন হাসানপ্রথম পাতা
জেলার বানিয়াচং উপজেলায় জমি বর্গা করা নিয়ে দুদল লোকের সংঘর্ষে অর্ধশতাধিক লোক আহত হয়েছে। এদের মধ্যে আহত ৪৩ জনকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। মঙ্গলবার বিকেলে প্রায় তিন ঘণ্টা স্থায়ী হয় এ সংঘর্ষ। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পুলিশ ও এলাকাবাসী ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানায়,...