91283_33
নেদারল্যান্ডসের সাংবাদিক, গবেষক ও বাংলাদেশের আজীবন বন্ধু পিটার কাস্টারস আর নেই। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে ৬৬ বছর বয়সে বৃহস্পতিবার তিনি নেদারল্যান্ডসের লিডেনে নিজ বাড়িতে মারা যান। বাংলাদেশে ডাচ সাংবাদিক হিসেবে কাজ করার সময় ১৯৭০-এর দশকে তিনি এদেশের কৃষকদের সংগঠিত করেছিলেন। এজন্য তিনি সর্বাধিক পরিচিতি পান। এ ছাড়া তিনি বাংলাদেশ নিয়ে লিখেছেন বেশ কিছু বই। এর মধ্যে ১৯৯৩ প্রকাশিত হয় ‘প্রসিডিংস অব দ্য ইউরোপিয়ান কনফারেন্স অন দ্য ফ্লাড অ্যাকশন প্লান ইন বাংলাদেশ’। ১৯৯৭ সালে প্রকাশিত হয় ‘ফুড সিকিউরিটি, এফএপি অ্যান্ড বাংলাদেশ’। ১৯৯৮ সালে লিখেছেন ‘ দ্য পিজেন্ট মুভমেন্ট অ্যান্ড দ্য ফিউচার অব বাংলাদেশ’। ২০০৬ সালে লিখেছেন ‘ডেমোক্রেসি অ্যান্ড হিউম্যান রাইটস ইন বাংলাদেশ’। ২০১২ সালে লিখেছেন ‘মওলানা ভাসানি, লিডার অব দ্য টয়লিং ম্যাসেস’। পিটার কাস্টার একই সঙ্গে নেদারল্যান্ডস ও আন্তর্জাতিক সংবাদপত্র ও ম্যাগাজিনে লেখালেখি করতেন। ১৯৮০-এর দশকে তিনি পারমাণবিক যুদ্ধের হুমকির বিরুদ্ধে ডাচ শান্তি সংগ্রামে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন। তিনি একাধারে ছিলেন প্রচারক, লেখক ও তাত্ত্বিক (থিওরিটিশিয়ান)। তিনি সামাজিক পরিবর্তন ও উন্নয়নের ওপর লিখেছেন বেশ কিছু বই ও প্রবন্ধ। তার বিখ্যাত বইগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো ‘ক্যাপিটাল অ্যাকুমুলেশন অ্যান্ড ওমেন্সেস লেবার ইন এশিয়ান ইকোনমিজ’। এ বইটি বাম ধারার রাজনৈতিক আন্দোলনে গতি এনেছে এবং ভাবনার খোরাক যুগিয়েছে। নেদারল্যান্ডসের লিডেন ইউনিভার্সিটি থেকে ইন্টারন্যাশনাল ল’ বিষয়ের ওপর এমএ ডিগ্রি অর্জন করেন ১৯৭০ সালে। ওয়াশিংটন জন হপকিন্স ইউনিভার্সিটিতে তিন বছরের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিষয়ক কোর্স সম্পন্ন করেন। নেদারল্যান্ডসের নিজমেগেনে অবস্থিত ক্যাথোলিক ইউনিভার্সিটি থেকে সমাজবিজ্ঞানে অর্জন করেন পিএইচ ডিগ্রি। লিডেনে ইন্টারন্যাশনাল ইন্সটিটিউট ফর এশিয়ান স্টাডিজে বাংলাদেশে ধর্মীয় সহনশীলতা ও ইতিহাস বিষয়ে তিনি গবেষণা করেন ২০০৭/২০০৮ সালে। ২০১০ সালে তাকে হিউম্যান রাইটস ডিফেন্ডার অ্যান্ড ফ্রেন্ড অব বাংলাদেশ পুরস্কারে ভূষিত করা হয়। তিনি দৈনিক প্রথম আলোর স্পেশাল ইউরোপিয়ান করেসপন্ডেন্ট ও দ্য ডেইলি স্টারে কলামনিস্ট হিসেবে কাজ করছিলেন।

শুভ সমরাটপ্রথম পাতা
নেদারল্যান্ডসের সাংবাদিক, গবেষক ও বাংলাদেশের আজীবন বন্ধু পিটার কাস্টারস আর নেই। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে ৬৬ বছর বয়সে বৃহস্পতিবার তিনি নেদারল্যান্ডসের লিডেনে নিজ বাড়িতে মারা যান। বাংলাদেশে ডাচ সাংবাদিক হিসেবে কাজ করার সময় ১৯৭০-এর দশকে তিনি এদেশের কৃষকদের সংগঠিত করেছিলেন। এজন্য তিনি সর্বাধিক পরিচিতি পান। এ ছাড়া তিনি বাংলাদেশ নিয়ে...