1441869314
নাগেশ্বরীতে পল্লি চিকিৎসকের বিরুদ্ধে রোগীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ পাওয়া গেছে। সুষ্ঠু বিচার চেয়ে এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে উপজেলার কেদার ইউনিয়নের ঢলুয়াবাড়ী গ্রামের এক রোগী কচাকাটা বাজারে পল্লি চিকিৎসক কেদার ইউনিয়নের গোলের হাট গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে আলতাফ হোসেনের (৩০) চেম্বারে চিকিৎসা নিতে গেলে তার শ্লীলতাহানির চেষ্টা চালান তিনি। সেখান থেকে বেরিয়ে ওই রোগী তার স্বামীকে বিষয়টি জানালে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। বিষয়টি জানাজানি হলে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী তার চেম্বার ঘেরাও করে। এক পর্যায়ে পল্লি চিকিৎসক আলতাফ হোসেন চেম্বার বন্ধ করে সরে পড়েন। এ ঘটনায় স্বামী কালাচান গত বুধবার সুষ্ঠু বিচার চেয়ে কেদার ইউপি চেয়ারম্যনের কাছে লিখিত অভিযোগ করেন। কেদার ইউপি চেয়ারম্যান আ.খ.ম ওয়াজিদুল কবির রাশেদ ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে। পল্লি চিকিৎসক আলতাফ হোসেন বলেন, ঘটনাটি বানোয়াট। আমি শুধু তাকে চেক-আপ করেছি মাত্র।

কচাকাটা থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে বলেন, বিষয়টি জেনেছি। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। অভিযোগ পেলে মামলা নেয়া হবে।

ওয়াজ কুরুনীস্বদেশের খবর
নাগেশ্বরীতে পল্লি চিকিৎসকের বিরুদ্ধে রোগীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ পাওয়া গেছে। সুষ্ঠু বিচার চেয়ে এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে উপজেলার কেদার ইউনিয়নের ঢলুয়াবাড়ী গ্রামের এক রোগী কচাকাটা বাজারে পল্লি চিকিৎসক কেদার ইউনিয়নের গোলের হাট গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে আলতাফ হোসেনের (৩০) চেম্বারে চিকিৎসা নিতে...