গাজীপুর প্রতিনিধি ।
মাত্র দেড় মিনিটে গাজীপুর জেলার কাপাসিয়া থানার ২২৬ টি গ্রামের নাম বলতে পারেন ভুলেশ্বর উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী সিনিয়র শিক্ষক আক্তার হোসেন।খবর ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমের।
তার এই কর্মকাণ্ডে রীতিমতো বিস্মিত উপজেলার লোকজন। তার এই ক্ষমতায় মুগ্ধ হয়েছেন স্থানীয় সংসদ সদস্য সিমিন হোসেন রিমিন।

এ প্রসঙ্গে আক্তার হোসেন বলেম, আমি বাংলার শিক্ষক। বাংলার বিভিন্ন বিষয়ের মতো আমার নিজের উপজেলার বিষয়ে আগ্রহ কাজ করে। এভাবেই ২০১০ সাল থেকে আমি গ্রামে গ্রামে ঘুরে নামগুলো মুখস্থ শুরু করি। আমার কোনো কিছুই লেখা নেই, সবই মুখস্থ।

আগ্রহের কারণ সম্পর্কে বলেন, আমার তো টাকা পয়সা নেই আগ্রার তাজমহল দেখতে যাবো, তাই নিজের ঘোরাঘুরির পরিসরেই নামগুলো মুখস্থ রাখতে শুরু করি। এভাবেই খেয়াল করলাম আমার থানার সব গ্রামের নাম মুখস্থ করে ফেলেছি।

স্থানীয়ভাবে ৫৭ বছরের আক্তার হোসেন সকলের নিকট আক্তার মাস্টার হিসেবে পরিচিত। ২২৬ টি গ্রামের নাম এক নাগাড়ে বলতে পারায় অনেকেই তাঁকে সাধুবাদ জানান। স্থানী সংসদ সদস্য সিমিন হোসেন রিমি তাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। তার সামনে মাত্র ১ মিনিট ৩০ সেকেন্ড সময় নিয়ে কাপাসিয়ার ২২৬ টি গ্রামের নাম বলে মুগ্ধ করেছিলেন।

আক্তার হোসেন শুধু নিজ থানার গ্রাম নয়, ৬৪ টি জেলার নাম মাত্র ৩০ সেকেন্ডে মুখস্থ বলে দিতে পারেন। বঙ্গবন্ধুর ভাষণ বারবার পড়তে গিয়ে একসময় দেখেন যে পুরো ভাষণ মুখস্থ হয়ে গেছে। আক্তার হোসেন দেড়শো গান আত্মস্থ করেছেন যা নাগাড়ে গেয়ে যেতে পারেন।
খবর ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমের।

http://crimereporter24.com/wp-content/uploads/2018/01/368.jpghttp://crimereporter24.com/wp-content/uploads/2018/01/368-300x300.jpgতালুকদার বাবুলএক্সক্লুসিভ
গাজীপুর প্রতিনিধি । মাত্র দেড় মিনিটে গাজীপুর জেলার কাপাসিয়া থানার ২২৬ টি গ্রামের নাম বলতে পারেন ভুলেশ্বর উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী সিনিয়র শিক্ষক আক্তার হোসেন।খবর ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমের। তার এই কর্মকাণ্ডে রীতিমতো বিস্মিত উপজেলার লোকজন। তার এই ক্ষমতায় মুগ্ধ হয়েছেন স্থানীয় সংসদ সদস্য সিমিন হোসেন রিমিন। এ প্রসঙ্গে আক্তার হোসেন...