1438420072
দুবাইয়ে মিজান মিয়া (২৮) নামে এক বাংলাদেশি শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার রাতে ওই শ্রমিকের মরদেহ তার বাসা থেকে উদ্ধার করা হয়। মিজান কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার ৮নং মুন্সীরহাট ইউনিয়নের বাংপাই গ্রামের ইউনুছ মিয়ার পুত্র। দুবাই থেকে ছুটিতে দেশে আসা শ্রমিক মিজানের মামা ইসরাফিল মিয়া শনিবার দুপুরে মিজানের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তার মৃত্যুর খবরে পরিবারে চলছে শোকের মাতম।

মোবাইল ফোনে প্রাপ্ত খবরের বরাত দিয়ে ইসরাফিল জানান, দুবাই প্রবাসে থাকা শ্রমিক মিজানের স্বজনরা গত বুধবার থেকে মিজানের মোবাইল ফোন বন্ধ থাকায় তার কোন খোঁজ পাচ্ছিলেন না। পরে শুক্রবার রাতে তারা দুবাই’র কারামা এলাকায় মিজানের বাসায় গিয়ে দরজা বন্ধ দেখতে পান। এসময় তারা অনেক ডাকাডাকি করে সাড়া না পেয়ে দরজা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে মিজানের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখেন। পরে খবর পেয়ে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে নিয়ে যায়। তবে কি কারণে তার মৃত্যু হয়েছে তা নিশ্চিত করে তিনি জানাতে পারেননি।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ২ ভাই ১ বোনের মধ্যে মিজান বড়। প্রায় ৩ বছর আগে তিনি বিয়ে করেন এবং প্রায় ১ বছর আগে তিনি ছুটি কাটিয়ে দুবাই চলে যান। পরিবারের একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যক্তি ছিলেন মিজান।

এদিকে মিজানের মৃত্যুর খবর জেনে তার বাবা-মা ও স্বজনরা বুকফাটা কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন। তাদের বাড়িতে এখন চলছে শোকের মাতম। ছেলের মরদেহ শিগগির দেশে আনার ব্যবস্থা করার জন্য পরিবারের লোকজন সরকারের সহায়তা চেয়েছেন।

বাহাদুর বেপারীপ্রবাস জীবন
দুবাইয়ে মিজান মিয়া (২৮) নামে এক বাংলাদেশি শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার রাতে ওই শ্রমিকের মরদেহ তার বাসা থেকে উদ্ধার করা হয়। মিজান কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার ৮নং মুন্সীরহাট ইউনিয়নের বাংপাই গ্রামের ইউনুছ মিয়ার পুত্র। দুবাই থেকে ছুটিতে দেশে আসা শ্রমিক মিজানের মামা ইসরাফিল মিয়া শনিবার দুপুরে মিজানের মৃত্যুর বিষয়টি...