untitled-5_152315
তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, গণমাধ্যম রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ। তাই প্রশাসন এবং জেলা প্রশাসকদের গণমাধ্যমের সঙ্গে খাপ খাইয়ে চলতে হবে। আইনমন্ত্রী আনিসুল হক মামলাজট কমাতে বিকল্প বিরোধ নিষ্পত্তি পদ্ধতি সম্পর্কে জনগণকে উৎসাহিত করতে ডিসিদের নির্দেশ দিয়েছেন। জেলা প্রশাসক সম্মেলনের শেষ দিনে গতকাল সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে তথ্য, আইন, বেসামরিক বিমান চলাচল ও পর্যটন, বস্ত্র ও পাট, পানি সম্পদ, নৌপরিবহন, ধর্ম, সমাজকল্যাণ এবং জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়সহ ১১টি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীরা পৃথক পৃথক কার্য অধিবেশনে বৈঠক করেছেন ডিসিদের সঙ্গে। এ সময় তথ্য ও আইনমন্ত্রী ডিসিদের এমন নির্দেশনা দেন। সকালে প্রথম অধিবেশনেই তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর এবং যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী বৈঠক করেন ডিসিদের সঙ্গে। বৈঠক শেষে তথ্যমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, আমি ডিসিদের বলেছি যুগ পাল্টেছে, গণমাধ্যম এখন রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ। অতীতে যেমন নির্বাহী বিভাগ, আইন বিভাগ ও বিচার বিভাগের দ্বারা রাষ্ট্র পরিচালিত হতো। এখন গণমাধ্যম রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ, তাই প্রশাসন এবং জেলা প্রশাসকদের গণমাধ্যমের সঙ্গে খাপ খাইয়ে চলতে হবে। হাসানুল হক ইনু বলেন, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার যে প্রত্যয় নিয়েছেন তার অংশ হিসেবে প্রশাসনকে কাচের ঘরের মধ্যে স্থাপন করেছেন। ভিতরে যা আছে তার সব কিছুই বাইরে থেকে দেখা যায়। তাই যারা প্রশাসনে আছেন তাদেরকে স্বচ্ছতা এবং জবাবদিহিতা বজায় রাখতে হবে। তিনি বলেন, একদিকে কাচের ঘর তৈরি, আরেক দিকে জীবন্ত এবং সক্রিয় গণমাধ্যমের দ্বারা তথ্য প্রবাহ অবাধ করতে হবে। একই সঙ্গে তথ্য সন্ত্রাস ও অপসাংবাদিকতা রুখে দিতে হবে। তথ্যমন্ত্রী জানান, বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী এবং স্বাধীনতার পঞ্চাশ বছর পূরণ উপলক্ষে জেলা প্রশাসকদের বিশেষ দুটি নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

মামলাজট কমানোর নির্দেশ : দুপুরে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বৈঠক করেন ডিসিদের সঙ্গে। বৈঠক শেষে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, সারা দেশে মামলাজট কমাতে বিকল্প বিরোধ নিষ্পত্তি (এডিআর) পদ্ধতি সম্পর্কে জনগণকে উৎসাহিত করতে ডিসিদের নির্দেশনা দিয়েছি। এ বিষয়ে জেলা প্রশাসকরা যেন তৎপর হন সেই জন্য ডিসিদের অনুরোধ করা হয়েছে। একই সঙ্গে লিগ্যাল এইডের বিষয়েও জানাতে বলেছি। তিনি বলেন, মোবাইল কোর্ট আইনে সাজা দেওয়ার পর কোনো আসামি যাতে ছাড়া না পান সে বিষয়ে অ্যাসিস্ট্যান্ট পাবলিক প্রসিকিউটর নিয়োগ করা হবে। আনিসুল হক বলেন, জেলা প্রশাসকদের পক্ষ থেকে তার কাছে কোনো প্রস্তাব বা সুপারিশ করা হয়নি। তবে কিছু কিছু সমস্যার কথা বলেছেন।

মন্ত্রীর সামনে নদী দূষণের কথা তুলে ধরলেন ডিসিরা : নৌপরিবহন মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত কার্য অধিবেশনে নৌমন্ত্রী শাজাহান খান ডিসিদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে নদী দখল, দূষণ, সীমানা নির্ধারণ, নৌ দুর্ঘটনা রোধসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেন। ডিসিরা স্থলবন্দর সমস্যা, নদী দূষণে নিজ নিজ জেলার সমস্যার কথা জানিয়েছেন। বৈঠক শেষে নৌমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, নদী দখল অনেকাংশে কমেছে। তবে নিঃশেষ হয়নি। নদী দখল ও দূষণ রোধে কাজ করার জন্য ডিসিদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে শুধু ঢাকা শহরের মধ্যে নয়, সারা দেশের সব নদীর সীমানা নির্ধারণের জন্য জেলা প্রশাসকদের বলেছি। তাদেরকে বলেছি, আদালতের আদেশ রয়েছে, সিএস এবং আরএস অনুযায়ী সব নদীর সীমানা নির্ধারণের জন্য।

ক্ষমতা বিকেন্দ্রীকরণে সৈয়দ আশরাফের নির্দেশ : জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত কার্য অধিবেশনে যোগ দিয়ে জনপ্রশাসনমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম ডিসিদের উদ্দেশে বলেছেন, ক্ষমতা বিকেন্দ্রীকরণের জন্য জেলা প্রশাসকদের মানসিক প্রস্তুতি নিতে হবে। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত আলোচনা শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোশাররাফ হোসাইন ভূইঞা এ তথ্য জানিয়ে বলেন, জনপ্রশাসনমন্ত্রী ক্ষমতা বিকেন্দ্রীকরণের ওপর জোর দিয়েছেন। এটা নীতিনির্ধারণীর বিষয়। তবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও এর আগে বিষয়টি বলেছিলেন। বৈঠক সূত্রে জানা গেছে, এবারের সম্মেলনে জেলা প্রশাসকেরা জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সম্পর্কে মোট ২৪টি প্রস্তাব দিয়েছিলেন। গতকাল আরও কিছু নতুন প্রস্তাব আলোচনা হয়।

তাহসিনা সুলতানাপ্রথম পাতা
তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, গণমাধ্যম রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ। তাই প্রশাসন এবং জেলা প্রশাসকদের গণমাধ্যমের সঙ্গে খাপ খাইয়ে চলতে হবে। আইনমন্ত্রী আনিসুল হক মামলাজট কমাতে বিকল্প বিরোধ নিষ্পত্তি পদ্ধতি সম্পর্কে জনগণকে উৎসাহিত করতে ডিসিদের নির্দেশ দিয়েছেন। জেলা প্রশাসক সম্মেলনের শেষ দিনে গতকাল সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে তথ্য, আইন,...