masud-sadesh_305842
দৈনিক জনকণ্ঠের সম্পদক আতিকুল্লাহ খান মাসুদ ও নির্বাহী সম্পাদক স্বদেশ রায়ের আদালত অবমানার বিষয়ে রায়ের জন্য ১৩ আগস্ট দিন ধার্য করেছেন সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ।
সোমবার উভয় পক্ষের শুনানি শেষে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বে গঠিত ছয় সদস্যের সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ এই আদেশ দেন।
শুনানিতে জনকণ্ঠের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন সালাহ উদ্দিন দোলন। রাষ্ট্র পক্ষে ছিলেন অ্যাটনি জেনারেল মাহবুবে আলম।
আসামি পক্ষের আইনজীবী সালাহ উদ্দিন দোলন ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, প্রকাশিত প্রতিবেদনে আদালত অবমানার মতো কোন ঘটনা ঘটেনি। এখানে একজন বিচারতিকে নিয়ে বলা হয়েছে। পুরো বিচার বিভাগ, আপিল বিভাগ ও হাইকোর্টে কোন কিছুকে জড়িয়ে কথা বলা হয়নি। আমি আশা করি আদালত থেকে ওনারা রেহায় পাবেন।
এর আগে রোববার সম্পাদক আতিকুল্লাহ খান মাসুদ ও নির্বাহী সম্পাদক স্বদেশ রায়ের আদালত অবমানার জবাব দাখিলের শুনানি আপিল বিভাগের বৃহত্তর বেঞ্চে শুনানি হয়।
প্রসঙ্গত, গত ২৯ জুলাই দৈনিক জনকণ্ঠের সম্পাদক আতিকুল্লাহ খান মাসুদ ও নির্বাহী সম্পাদক স্বদেশ রায়কে তলব করে স্বপ্রনোদিত আদেশ দেয় আপিল বিভাগ। আদালত অবমাননার দায়ে কেন তাদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে না-তা জানতে ৩ আগস্ট হাজির হয়ে এর ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়। সে অনুযায়ী তারা ওই দিন হাজির হয়ে জবাব দাখিলে সময় প্রার্থনা করেন।
গত ১৬ জুলাই দৈনিক জনকণ্ঠে ‘সাকার পরিবারের তৎপরতা/পালাবার পথ কমে গেছে’ শিরোনামে উপসম্পাদকীয় লেখেন স্বদেশ রায়। সে লেখায় সাকা চৌধুরীর আপিল মামলার রায়কে কেন্দ্র করে বিভিন্ন কথা উল্লেখ করা হয়।
২৯ জুলাই সাকা চৌধুরীর আপিলেও মৃত্যুদণ্ড বহাল রাখার রায়ের পরপরই জনকণ্ঠের সম্পাদক ও নির্বাহী সম্পাদককে তলব করে আদেশ দেয় আদালত।

বাহাদুর বেপারীআইন-আদালত
দৈনিক জনকণ্ঠের সম্পদক আতিকুল্লাহ খান মাসুদ ও নির্বাহী সম্পাদক স্বদেশ রায়ের আদালত অবমানার বিষয়ে রায়ের জন্য ১৩ আগস্ট দিন ধার্য করেছেন সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ। সোমবার উভয় পক্ষের শুনানি শেষে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বে গঠিত ছয় সদস্যের সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ এই আদেশ দেন। শুনানিতে জনকণ্ঠের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন সালাহ উদ্দিন...