Chuadanga-150x96
কাহিনী’ ফেঁদে লাভ হলো না। অন্যের স্ত্রীকে ধর্ষণ করতে গিয়ে তার স্বামীর ধারালো হাঁসুয়ার কোপে আহত হন যুবলীগ নেতা আব্দুল হান্নান ছোট (৪০)।

তিনি দামুড়হুদা উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ও দর্শনা পৌরসভার শ্যামপুরের মরহুম তনু মল্লিকের ছেলে। ছোট বর্তমানে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

পারলো না রাতে সাজানো কাহিনী ধরে রাখতে। দিনের আলোয় সব কিছুই ফাঁস হয়ে গেলো।

যুবলীগ নেতা আব্দুল হান্নান ছোট ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, তিনি রাঙ্গিয়ার পোতা গ্রামের পাশে বাওড়ে বৃহস্পতিবার রাত আড়াইটার দিকে মাছ দেখতে গিয়েছিলেন। এসময় শিংনগর ব্রিজের কাছে এলে দুর্বৃত্তরা তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে আহত করে।

কিন্তু ছোটর ফাঁদা কাহিনী বিশ্বাস না করে দামুড়হুদা ও চুয়াডাঙ্গা পুলিশ প্রকৃত ঘটনা উদ্ঘাটনের জন্য তদন্ত শুরু করে। আর এই তদন্তেই বেরিয়ে এলো আসল রহস্য।

চুয়াডাঙ্গা সদর থানায় অফিসার ইনচার্জ লিয়াকত হোসেন ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, যুবলীগ ছোট অস্ত্রের আঘাতে আহত হওয়ার পর পুলিশে তদন্তে প্রকৃত রহস্য উদ্ঘাটিত হয়।

তিনি জানান, প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে, ঘটনার সময় রাঙ্গিয়ার পোতা গ্রামের পাশে বাওড়ে তিনি মাছ দেখতে যাননি। ওই সময় বাওড়ের পাশে জনৈক দিনমজুরের স্ত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। এ সময় ওই গৃহবধূর স্বামীর ধারালো হাঁসুয়া দিয়ে ছোটকে কুপিয়ে আহত করেন।

এ ব্যাপারে ওই গৃহবধূ ধর্ষণ প্রচেষ্টার মামলা করতে চাইলে তা গ্রহণ করা হবে বলেও তিনি জানান।

নৃপেন পোদ্দারশেষের পাতা
কাহিনী’ ফেঁদে লাভ হলো না। অন্যের স্ত্রীকে ধর্ষণ করতে গিয়ে তার স্বামীর ধারালো হাঁসুয়ার কোপে আহত হন যুবলীগ নেতা আব্দুল হান্নান ছোট (৪০)। তিনি দামুড়হুদা উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ও দর্শনা পৌরসভার শ্যামপুরের মরহুম তনু মল্লিকের ছেলে। ছোট বর্তমানে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। পারলো না রাতে সাজানো কাহিনী ধরে...