কুড়িগ্রাম সংবাদদাতা ।
কুড়িগ্রাম সদর উপজেলা থেকে জাহাঙ্গীর আলম (১৬) ও সেলিনা আক্তার (১৪) নামে দুই শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার করা হয়। বুধবার সকালে উপজেলার বেলগাছা ইউনিয়নের নানিয়ারদোলা এলাকা থেকে তাদের লাশ উদ্ধার করা হয়। খবর ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমের।

নিহত জাহাঙ্গীর আলম কুড়িগ্রাম সদর উপজেলার বেলগাছা ইউনিয়নের পূর্বকল্যান গ্রামের সৈয়দ আলীর ছেলে ও কুড়িগ্রাম টেকনিক্যাল স্কুল অ্যান্ড কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্র। সেলিনা আক্তার কুড়িগ্রাম পৌর এলাকার ডাকুয়াপাড়া গ্রামের জবেদ আলীর মেয়ে ও বেলগাছা ইউনিয়নের আমিন উদ্দিন দাখিল মাদ্রাসার অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে কুড়িগ্রাম সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) রওশন কবীর জানান, মঙ্গলবার থেকে তারা নিখোঁজ ছিল। বুধবার সকালে নালিয়ারদোলা এলাকার একটি সেচপাম্প ঘরের পাশে লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেন। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। প্রাথমিকভাবে এটিকে হত্যাকাণ্ড বলে মনে হচ্ছে। দুজনে পূর্ব পরিচিত ও তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক ছিল।

কুড়িগ্রাম পুলিশ সুপার মো. মেহেদুল করিম বলেন, পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। ময়নাতদন্ত ও পরবর্তী অনুসন্ধানে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।
খবর ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমের।

http://crimereporter24.com/wp-content/uploads/2018/09/LAS-UDDHAR.jpghttp://crimereporter24.com/wp-content/uploads/2018/09/LAS-UDDHAR-300x169.jpgজান্নাতুল ফেরদৌস মেহরিনস্বদেশের খবর
কুড়িগ্রাম সংবাদদাতা । কুড়িগ্রাম সদর উপজেলা থেকে জাহাঙ্গীর আলম (১৬) ও সেলিনা আক্তার (১৪) নামে দুই শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার করা হয়। বুধবার সকালে উপজেলার বেলগাছা ইউনিয়নের নানিয়ারদোলা এলাকা থেকে তাদের লাশ উদ্ধার করা হয়। খবর ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমের। নিহত জাহাঙ্গীর আলম কুড়িগ্রাম সদর উপজেলার বেলগাছা ইউনিয়নের...