image_271789.govt
এমবিবিএস/বিডিএস কোর্সের ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্ন পত্র ফাঁসের অভিযোগ সঠিক নয়।
চিকিৎসা শিক্ষা ও স্বাস্থ্যজনশক্তি উন্নয়ন পরিচালক অধ্যাপক ডা. এ বি এম আব্দুল হান্নান স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ এ কথা ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানিয়ে বলা হয়, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মেডিক্যাল শিক্ষা ও জনশক্তি উন্নয়নের পক্ষ থেকে অত্যন্ত দৃঢ়তার সাথে জানাতে চায় যে, শত ভাগ শততা ও স্বচ্ছতার সাথে নিঃছিদ্র নীরাপত্তা ও গোপনীয়তা রক্ষা করে এমবিবিএস ও বিডিএস ভর্তি পরীক্ষা প্রশ্নপত্র প্রনয়ন ও পরবর্তীতে সুষ্ঠভাবে পরীক্ষা গ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রশ্ন পত্র ফাঁসের যে সকল অভিযোগ বিভিন্ন মহল কর্তৃক উত্থাপিত হয়েছে তা মোটেও সঠিক নয়। গত ১৫ এবং ১৭ সেপ্টম্বর র‌্যাব এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষা প্রশ্নপত্র ফাঁসের সন্দেহে ২ টি চক্রকে আটক করে। এদের কারো কাছ থেকে এমবিবিএস এ ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত কোন প্রশ্নপত্র পাওয়া যায় নাই। ভর্তি পরীক্ষা স্বচ্ছ ও নিরপেক্ষ করার সকল ধরনের শতর্কতা মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তর কর্তৃক অবলম্বন করা হয়েছিল।
বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, পরীক্ষা শুরু হওয়ার পূর্ব মুহুর্ত পর্যন্ত কোন মহল কর্তৃক প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগ উত্থাপিত হয় নাই। প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগ উত্থাপন ও ভর্তি পরীক্ষা বাতিল চেয়ে দাখিলকৃত রিট আবেদনটি মহামান্য হাইকোট কর্তৃক খারিজের মাধ্যমে বিষয়টি ইতোমধ্যে মীমাংসিত।
এ জন্য চিকিৎসা শিক্ষা ও স্বাস্থ্যজনশক্তি উন্নয়ন পরিচালকের পক্ষ থেকে স্বার্থান্বেষী সুবিধাভোগী চক্রের অসুভ কর্মকান্ডে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য সকলের প্রতি আহবান জানানো হয়েছে।

শুভ সমরাটঅন্যান্য
এমবিবিএস/বিডিএস কোর্সের ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্ন পত্র ফাঁসের অভিযোগ সঠিক নয়। চিকিৎসা শিক্ষা ও স্বাস্থ্যজনশক্তি উন্নয়ন পরিচালক অধ্যাপক ডা. এ বি এম আব্দুল হান্নান স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ এ কথা ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানিয়ে বলা হয়, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মেডিক্যাল শিক্ষা ও জনশক্তি উন্নয়নের পক্ষ...