1438937494

রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার মাছপাড়াতে মিজু নামে এক শিশু নির্যাতনে নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ৩টায় পাংশা হাসপাতালে শিশুটি চিকিৎসার জন্য ভর্তি হয়। শুক্রবার সকাল ৬টায় হাসপাতালে শিশুটি মারা যায় বলে চিকিৎসকরা জানান। নিহত মিজু (১৩) মাছপাড়া ইউপির বাহাদুরপুর মাঠপাড়া গ্রামের মৃত আবু মুসার ছেলে।

স্থানীয়রা ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, নিহত মিজুর বাবা ও মা প্রায় ৭-৮ বছর আগে মারা যান। দুই ভাই এক বোনের মধ্যে মিজু সবার ছোট। বড় বোন মর্জিনার বাড়িতেই মিজু থাকতো। মর্জিনাও অন্যের বাড়িতে গৃহপরিচারিকা হিসেবে কাজ করেন। মিজু বিভিন্ন সময়ে অন্যের বাড়িতে কাজ করতো।

স্থানীয়রা আরও জানান, গত প্রায় পনের দিন আগে তার কাজের সঙ্গী একই ইউনিয়ন পরিষদের জয়নাল হাজারি নামে এক যুবক নেশা করার অপরাধে মিজুর শরীরের নিম্নাংশে বেধরক পিটিয়ে আহত করে। এতে পুরুষাংঙ্গে আঘাত পেয়ে গুরুতর আহত হয় মিজু। অর্থাভবে বিনা চিকিৎসায় বাড়িতে প্রায় চৌদ্দ দিন যন্ত্রণায় কাতরাতে থাকে। অবশেষে গত বৃহস্পতিবার অবস্থার অবনতি হলে পাংশা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। শুক্রবার সকাল ৬টায় মারা যায় সে।

নিহত মিজুর বড় বোন মর্জিনা খাতুন বলেন, আমার মাসুম ভাইকে যে হত্যা করেছে তার শাস্তি চাই ।

এ ব্যাপারে পাংশা থানার অফিসার ইনচার্জ আবু শামা মো. ইকবাল হায়াত ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে বলেন, এখন পযর্ন্ত আমরা কোন অভিযোগ পাই নি।

তাহসিনা সুলতানাপ্রথম পাতা
রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার মাছপাড়াতে মিজু নামে এক শিশু নির্যাতনে নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ৩টায় পাংশা হাসপাতালে শিশুটি চিকিৎসার জন্য ভর্তি হয়। শুক্রবার সকাল ৬টায় হাসপাতালে শিশুটি মারা যায় বলে চিকিৎসকরা জানান। নিহত মিজু (১৩) মাছপাড়া ইউপির বাহাদুরপুর মাঠপাড়া গ্রামের মৃত আবু মুসার ছেলে। স্থানীয়রা ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান,...