rajapur-photo-3_160090
ঝালকাঠির রাজাপুরের পুটিয়াখালীতে বিশাল আকৃতির ৪১ কেজি ওজনের একটি কচুর দাম হাঁকা হয়েছে আড়াই হাজার টাকা। শনিবার সকালে থানা চত্তরে বিক্রি করতে আসা ওই কচু দেখতে ভিড় জামান অনেকে। কচুটি এক সঙ্গে বিক্রি করতে না পেরে বিক্রেতা ৫০ টাকা দরে কেজি বিক্রি করছেন।

কচু বিক্রেতা হারুন মিরা ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, এটি স্থানীয়ভাবে চায়না কচু নামে পরিচিত। পুটিয়াখালী এলাকায় বাড়ির আঙিনায় তিন থেকে চার ফুট গর্ত করে ছাই ও আবর্জনা দিয়ে চারা রোপন করতে হয়। বড় আকৃতির একটি কচুর ওজন হয় ৩৫ কেজি থেকে দেড় মণ। বড় হতে আড়াই থেকে তিন বছর সময় লাগে। এক মণ ওজনের একটি কচু দুই হাজার টাকায় থেকে আড়াই হাজার টাকায় বিক্রি করা হয়।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা রিয়াজ উল্লাহ বাহাদুর ক্রাইম রিপোর্টার ২৪.কমকে জানান, বাড়ির আঙিনায় এ কচুর চাষ হচ্ছে। তবে বানিজ্যিকভাবে এখনও চাষাবাদ শুরু হয়নি।

বাহাদুর বেপারীশেষের পাতা
ঝালকাঠির রাজাপুরের পুটিয়াখালীতে বিশাল আকৃতির ৪১ কেজি ওজনের একটি কচুর দাম হাঁকা হয়েছে আড়াই হাজার টাকা। শনিবার সকালে থানা চত্তরে বিক্রি করতে আসা ওই কচু দেখতে ভিড় জামান অনেকে। কচুটি এক সঙ্গে বিক্রি করতে না পেরে বিক্রেতা ৫০ টাকা দরে কেজি বিক্রি করছেন। কচু বিক্রেতা হারুন মিরা ক্রাইম...