1437049398
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, ‘ভারত আমাদের ভাল বন্ধু। অচিরেই ছিটমহলের সকল সমস্যা সমাধান হয়ে যাবে। এখন কেবল উন্নয়নের কর্মকাণ্ড শুরু হবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘সরকার ইতোমধ্যে ২’শ কোটি টাকা ছিটমহলবাসীর জন্য বরাদ্দ করেছে। কিছুদিনের মধ্যেই এর কার্যক্রম শুরু হয়ে যাবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সবকিছু এগিয়ে যাচ্ছে। এতে কেউ বাঁধা হয়ে দাঁড়াতে পারবে না।’

বৃহস্পতিবার লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার তিনবিঘা করিডোর, দহগ্রাম-আঙ্গরপোতা উপজেলার অভ্যন্তরে থাকা ভারতীয় ১৪ নম্বর লতামারী ছিটমহল পরিদর্শন করে এক মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন মন্ত্রী।

মতবিনিময় সভায় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন লালমনিরহাট জেলা আ’লীগের সভাপতি প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি মোতাহার হোসেন এমপি, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ড. মোজাম্মেল হক, অতিরিক্ত সচিব (রাজনৈতিক) আবু হেনা মোহাম্মদ রহমাতুল মুনিম, বিজিবির মহাপরিচালক মেজর জেনারেল আজিজ আহমেদ।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন, ‘এতদিন আপনারা বাংলাদেশের অভ্যন্তরে বসবাস করলেও বাংলাদেশি ছিলেন না। বাংলাদেশের কৃষ্টি-কালচারে বেড়ে উঠলেও বাঙালি ছিলেন না। আজ থেকে আপনারা বাংলাদেশি। আপনারা বাঙালি।’

তিনি আরো বলেন, ‘বাংলাদেশ দ্রুত উন্নতির পথে এগিয়ে যাচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আপনাদের এগিয়ে নিয়ে যাবেন। আমি আপনাদের আনন্দ-উল্লাস দেখতে এসেছি। আমি ফিরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বলবো- আপনি ছিটমহল মানুষের হৃদয় জয় করেছেন। তারাও আপনাকে অভিনন্দন বার্তা ও কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন। এটি আমি পৌঁছে দেব।’

এর আগে সকাল সাড়ে ১১টা ২০ মিনিটে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালসহ উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা হেলিকপ্টার যোগে লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার ‘বাইপাস হেলিপ্যাড’ মাঠে অবতরণ করেন এবং সড়ক পথে সকাল ১১টা ৫০ মিনিটে তিনবিঘা করিডোরে পৌঁছালে সেখানে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের শিলিগুড়ি বিএসএফের ডিআইজি ডি হাকিব, বিএসএফের জলপাইগুড়ি সেক্টরের কমান্ডার এসকে প্যাটেল, কুচবিহার-২২ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক অজয় দুথারাসহ উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা স্বাগত জানান এবং বিএসএফের একটি চৌকস দল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালকে গার্ড অব অনার প্রদান করেন।

এরপরই তিনবিঘা করিডোরের অভ্যন্তরের আম্রকাননে বিএসএফের পরিদর্শন বইতে স্বাক্ষর করেন। সেখান থেকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল দহগ্রাম-আঙ্গরপোতা পরিদর্শনে যান।

দুপুরে পাটগ্রাম উপজেলার অভ্যন্তরে থাকা ১৪ নম্বর ছিটমহল পরিদর্শন শেষে ছিটমহলবাসীদের সাথে এক মতবিনিময় সভায় যোগদান করেন।

এদিকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘সিলেটের রাজন হত্যাকারীরা রেহাই পাবে না। তাদের বিচারের মুখোমুখি করা হবে এবং সাজাও নিশ্চিত করা হবে।”

তবে এসব ঘটনার যেন কোথাও পুনারাবৃত্তি না ঘটে সেজন্য মন্ত্রী সবাইকে সচেতন হওয়ার আহবান জানান।

হীরা পান্নাশেষের পাতা
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, 'ভারত আমাদের ভাল বন্ধু। অচিরেই ছিটমহলের সকল সমস্যা সমাধান হয়ে যাবে। এখন কেবল উন্নয়নের কর্মকাণ্ড শুরু হবে।' তিনি আরো বলেন, 'সরকার ইতোমধ্যে ২’শ কোটি টাকা ছিটমহলবাসীর জন্য বরাদ্দ করেছে। কিছুদিনের মধ্যেই এর কার্যক্রম শুরু হয়ে যাবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সবকিছু এগিয়ে যাচ্ছে।...